logo
মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯, ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ০৮ নভেম্বর ২০১৯, ০০:০০  

পোশাকের বিক্রয় হ্রাসে মুনাফা কমেছে এমঅ্যান্ডএসের

যাযাদি ডেস্ক

চলতি অর্থবছরের প্রথমার্ধে যুক্তরাজ্যের বৃহৎ পোশাক রিটেইলার মার্কস অ্যান্ড স্পেন্সারের (এমঅ্যান্ডএস) মুনাফা ১৭ শতাংশ হ্রাস পেয়েছে। সেপ্টেম্বর অব্যবহিতপূর্ব ছয় মাসে এমঅ্যান্ডএসের করপূর্ব মুনাফা দাঁড়িয়েছে ১৭ কোটি ৬৫ লাখ পাউন্ড, যা গত বছরের একই সময়ের ২১ কোটি ৩০ লাখ পাউন্ডের চেয়ে কম। খবর ডেইলি মেইল ও বিবিসি।

লন্ডনভিত্তিক হাই স্ট্রিট রিটেইলারটির বিক্রি ২ দশমিক ১০ শতাংশ হ্রাস পেয়ে ৪৮৬ কোটি পাউন্ডে দাঁড়িয়েছে। রিটেইলার প্রতিষ্ঠানটির খাদ্য খাতে বেশ ভালো মুনাফা করেছে, তবে পোশাক ও হোম সেল সংকুচিত হয়েছে। প্রথমার্ধে পোশাক ও হোম সেলস ৫ দশমিক ৫০ শতাংশ হ্রাস পেয়েছে, তবে খাবার বিক্রি শূন্য দশমিক ৯০ শতাংশ বেড়েছে।

এমঅ্যান্ডএস বলছে, দ্বিতীয়ার্ধের পূর্বাভাসে যদিও কিছুটা অগ্রগতির ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে, তবে বাজার পরিস্থিতি এখনো চ্যালেঞ্জিং রয়েছে।

এমঅ্যান্ডএসের প্রধান নির্বাহী স্টিভ রুয়ি বলেন, আমাদের রূপান্তর পরিকল্পনা এমন মাত্রা ও গতিতে চলছে, যা মার্কস অ্যান্ড স্পেন্সারের ইতিহাসে দেখা যায়নি।

১৩৫ বছরের পুরনো এ রিটেইলার প্রতিষ্ঠানটি সাম্প্রতিক সময়ে হাই স্ট্রিটে প্রাইমার্ক ও ইন্টারনেটে অ্যাসোসের মতো ফ্যাশন জায়ান্টের তীব্র প্রতিযোগিতার মুখোমুখি হচ্ছে।

চলতি বছরের প্রথমার্ধটি যে এমঅ্যান্ডএসের জন্য চ্যালেঞ্জিং ছিল, তা স্বীকার করে রুই বলেন, আমরা এখনো প্রাথমিক ধাপে আছি, কিন্তু আমরা জানি যে বিষয়গুলোর সুরাহা করতে হবে।

তরুণ প্রজন্মের ক্রেতাদের আকৃষ্ট করতে গত মাসে নতুন ধারার 'শার্পার ও অধিক স্টাইলিশ' পোশাক বাজারে নিয়ে এসেছে এমঅ্যান্ডএস।

কোম্পানিটি তাদের সু্যট ও টাইয়ের ব্যবসা এক-সপ্তমাংশ সংকুচিত করেছে এবং তার জায়গায় ক্যাজুয়াল পোশাক ও জাম্পারের দিকে জোর দিচ্ছে।

গত সেপ্টেম্বরে প্রথমবারের মতো ব্রিটেনের বৃহত্তম ১০০ প্রতিষ্ঠানের এফটিএসই তালিকা থেকে বাদ পড়ে এমঅ্যান্ডএস এবং গত মাসে কোম্পানিটির শেয়ারদর ৩০ বছরের সর্বনিম্নে নেমে এসেছে।

এমঅ্যান্ডএসের মুনাফায় ফেরা একটি 'ম্যারাথন দৌড়' বলে মনে করছেন সিইও রুয়ি ও চেয়ারম্যান আর্চি নর্মান। ১৯৯০-এর দশকে আরেক জনপ্রিয় ফ্যাশন ব্র্যান্ড আসদায় কাজের জন্য 'মুনাফার রাজা' হিসেবে পরিচিত ছিলেন নর্মান। গত মাসে গৃহস্থালি ও পোশাক বিভাগকে সঠিক পথে নিয়ে আসার উদ্যোগ ১৮ মাস পিছিয়ে থাকার বিষয়টি স্বীকার করেন এই জুটি। একই সঙ্গে প্রতিষ্ঠানটি জানায়, তারা 'ইনফ্লুয়েন্সার মার্কেটিং'য়ে প্রবেশ করবে, যেখানে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের প্রোফাইলে এমঅ্যান্ডএস পোশাকের ব্র্যান্ডিংয়ের জন্য সেলিব্রেটিদের অর্থ প্রদান করবে।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে