logo
শনিবার, ৩০ মে ২০২০, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

  ক্রীড়া প্রতিবেদক   ২৮ মার্চ ২০২০, ০০:০০  

বাফুফের নির্বাচন স্থগিত

করোনা পরিস্থিতির কারণে আগামী ২০ এপ্রিল নির্বাচন করা সম্ভব হচ্ছে না। পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত নির্বাচনের পরবর্তী তারিখও দেওয়া সম্ভব না। নির্বাহী কমিটির সদস্যরা লিখিতভাবে তাদের মতামত দিয়েছেন। এর ভিত্তিতেই শুক্রবার বাফুফে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে

বাফুফের নির্বাচন স্থগিত
অবশেষে নিজেদের অবস্থান থেকে সরে এসেছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন। করোনাভাইরাসের প্রকোপে যেখানে মানুষের স্বাভাবিক জীবনযাত্রা স্থবির হয়ে গেছে, সেখানে বাফুফে পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী ২০ এপ্রিল নির্বাচন করতে প্রস্তুত হয়েই ছিল। এ নিয়ে আলোচনা-সমালোচনার ঝড় উঠলেও নির্বাচন পেছানোর ব্যাপারে এতদিন কোনো পদক্ষেপ দেখা যায়নি দেশের ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থার। তবে শুক্রবার হঠাৎ করেই সিদ্ধান্ত বদলেছে বাফুফে, আপাতত পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত নির্বাচন স্থগিত করতে চায় বাংলাদেশের ফুটবলের সর্বোচ্চ সংস্থা। শুক্রবার ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে নির্বাহী কমিটির সদস্যরা একটি জরুরি সভা করেছেন। এরপরই সবার মতামতের ভিত্তিতে নেওয়া হয়েছে এই সিদ্ধান্ত। করোনার কারণে খবরটি মেইলের মাধ্যমেই জানিয়েছে বাফুফে।

মহামারির কারণে আপাতত সব জমায়েত-ই নিষিদ্ধ। এছাড়া সবাইকেই বাসায় থাকতে হচ্ছে। বর্তমান পরিস্থিতির কথা চিন্তা করে নির্বাচন যথা সময়ে আয়োজন করা কঠিন। তাই যতদিন পর্যন্ত পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হবে ততদিন নির্বাচন স্থগিত থাকবে। এ প্রসঙ্গে বাফুফের সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম সোহাগ বলেছেন, 'করোনা পরিস্থিতির কারণে আগামী ২০ এপ্রিল নির্বাচন করা সম্ভব হচ্ছে না। পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত নির্বাচনের পরবর্তী তারিখও দেওয়া সম্ভব না। নির্বাহী কমিটির সদস্যরা লিখিতভাবে তাদের মতামত দিয়েছেন। এর ভিত্তিতেই শুক্রবার বাফুফে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে।'

বাফুফের বর্তমান কমিটির মেয়াদ আছে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত। সেক্ষেত্রে নির্বাচন মেয়াদের পরই করতে হবে। বাফুফে সাধারণ সম্পাদকও মেনে নিচ্ছেন পরিস্থিতি, 'মেয়াদপূর্তির পরই হয়তো নির্বাচন করতে হবে। করোনার কারণে তো আগে করা যাচ্ছে না। কবে করতে পারব, সেটাও বলতে পারছি না। বলতে পারেন অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত। আমরা এই বিষয়টি ফিফা ও এএফসিকে অবহিত করব। আশা করছি তারা বিষয়টি বুঝবে।'

যদিও এরই মধ্যে ফিফা-এএফসি জানিয়ে দিয়েছে এই নির্বাচনে তাদের কোনো পর্যবেক্ষক পাঠাবে না। তবে নির্বাচন করার সিদ্ধান্ত তারা বাফুফের ওপরই ছেড়ে দিয়েছিল। এখন বাফুফে সিদ্ধান্ত বদলের পর ফিফা থেকেও নির্বাচন পেছানোর ব্যাপারে ইতিবাচক সিদ্ধান্তই আসবে বলে মনে করছেন বাফুফে সংশ্লিষ্টরা। নির্বাচন স্থগিতের সিদ্ধান্তের পাশাপাশি আরও একটি সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাফুফে। এই নির্বাচনের কাউন্সিলরদের নাম পাঠানোর সর্বশেষ দিন ছিল ৩০ মার্চ। সেটি বাড়িয়ে ৭ এপ্রিল পর্যন্ত করা হয়েছে।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে