logo
  • Sun, 18 Nov, 2018

  ক্রীড়া ডেস্ক   ১৩ জুলাই ২০১৮, ০০:০০  

সমালোচনাই মদ্রিচদের প্রেরণা!

সমালোচনাই মদ্রিচদের প্রেরণা!
ফাইনালে ওঠার স্বপ্ন পূরণের পর কোচ জলাতকো দালিচের সঙ্গে উচ্ছ¡াসে মেতেছেন ক্রোয়েশিয়া দলের অধিনায়ক লুকা মদ্রিচ Ñওয়েবসাইট
ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ম্যাচটা সহজে জিতে যাবে ইংল্যান্ডÑহ্যারি কেনরা বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে ওঠার পর কিছু ইংলিশ গণমাধ্যম তাই বলছিল। তখন চুপ মেরে ছিলেন ক্রোয়েশিয়ার অধিনায়ক লুকা মদ্রিচ। বুধবার রাতে ইংল্যান্ডকে হারিয়ে তবেই ওইসব গণমাধ্যমের কথার জবাব দিয়েছেন তিনি। জানিয়েছেন, সমালোচনা আর নিন্দাই তাদের ভেতরের বারুদটাকে জ্বালিয়ে দিয়েছে।

মস্কোতে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে শুরুতে পিছিয়ে পড়েও দারুণ এক জয় তুলে নিয়েছে মদ্রিচের ক্রোয়েশিয়া। এই জয়ে প্রথমবারের মতো তারা পেঁৗছে গেছে বিশ্বকাপের ফাইনালে। অথচ ম্যাচের আগে তাদের গণনাতেই ধরেনি কিছু ইংলিশ গণমাধ্যম। মনে হচ্ছিল যেন মাঠে নামার আগেই জিতে গেছে ইংল্যান্ড। কিন্তু শেষতক হার দেখতে হয়েছে তাদেরই। ম্যাচশেষে গণমাধ্যমের ক্ষুদ্র মানসিকতার কথা তুলে ধরে মদ্রিচ বলেছেন, ‘আমরা তাদের কথাকে ভুল প্রমাণিত করেছি। বিশেষ করে ইংলিশ সাংবাদিক আর টিভি চ্যালেনের ফুটবল পÐিতরা আজ (বুধবার) রাতে ক্রোয়েশিয়াকে ছোটভাবে উপস্থাপন করেছিল। আর ওটা ছিল তাদের সবচেয়ে বড় ভুল।’

কেন বড় ভুল? মদ্রিচ জানিয়েছেন, ইংলিশ গণমাধ্যমের কথায় জয়ের ইচ্ছাটা আরও প্রবল হয়ে ওঠে ক্রোয়েশিয়ার ড্রেসিংরুমে। অপমানিত হওয়ার পর মনে মনে সমুচিত জবাব দেয়ার প্রতিজ্ঞা করেছিলেন তারা, ‘তাদের কথা শোনার পর আমরা বলছিলাম, “আচ্ছা, দেখা যাবে আজ কারা ক্লান্ত হয়।” আমরা আরেকবার দেখিয়েছি, আমরা ক্লান্ত হই না। আমরা শারীরিক এবং মানসিক উভয় দিক থেকেই তাদের ওপর ছড়ি ঘুরিয়েছি।’

মদ্রিচ মনে করছেন, ৯০ মিনিটেরর মধ্যেই ম্যাচটা শেষ করে দেয়া উচিত ছিল তাদের। তবে ক্রোয়েশিয়া ফাইনালে খেলতে পারছে এটাকেই সবকিছু থেকে বড় মনে করছেন তিনি। নিজেদের অজের্ন গবির্ত রিয়াল মাদ্রিদ তারকা বলেছেন, ‘ম্যাচটা অতিরিক্ত সময়ে গড়ানোর আগেই ম্যাচটা শেষ করে দেয়া দরকার ছিল। এটা (ফাইনাল) আমাদের জন্য স্বপ্ন সত্যি হওয়ার মতো অসাধারণ এক অজর্ন। দীঘির্দন পর আমরা ফাইনালে। ক্রোয়েশিয়ার ইতিহাসে সবচেয়ে বড় অজর্ন এটা। আমাদের গবর্ করতেই হবে।’

মদ্রিচের সামনে এখন তাদের ক্যারিয়ারের সবচেয়ে বড় ম্যাচ। রোবারের ফাইনাল। যেখানে প্রতিপক্ষ সাবেক বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ফ্রান্স। এই দলটির কাছেই ১৯৯৮ সালের সেমিফাইনালে হেরেছিল মদ্রিচদের পূবর্সূরিরা। তাদের হারিয়ে কি এবার স্বপ্নের বিশ্বকাপ ট্রফিটা জিততে পারবে ক্রোয়েশিয়া? মদ্রিচ জানিয়েছেন, বরাবরের মতো এই ম্যাচেও নিজেদের সব উজাড় করে খেলবেন তারা, ‘আমরা একটি শক্তিশালি দলের বিপক্ষে লড়তে যাচ্ছি, যাদের টপ কোয়ালিটির ফুটবলার রয়েছে অনেক। এবারের আসরের সবচেয়ে কঠিন ম্যাচ হতে পারে আামদের জন্য। তবে আমরাও কম শক্তিশালী নই! আমরা নিজেদের সবটুকু ঢেলে দেব, মাঠে মনপ্রাণ উজাড় করে খেলব। দেখা যাক, কী হয়।’
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
অাইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
close

উপরে