logo
বৃহস্পতিবার ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৮, ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৪

  ক্রীড়া ডেস্ক   ১৩ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০  

তারুণ্যের শক্তিতে উজ্জ্বল আজেির্ন্টনা

এমবাপেতে রক্ষা ফ্রান্সের

তারুণ্যের শক্তিতে উজ্জ্বল আজেির্ন্টনা
ক্যারিয়ারের প্রথম আন্তজাির্তক গোলের পর লাওতারো মাটিের্নজ। বৃহস্পতিবার আন্তজাির্তক প্রীতি ম্যাচে ইরাকের বিপক্ষে আজেির্ন্টনার জয়ে অবদান রাখেন ইন্টার মিলানের এই স্ট্রাইকার Ñওয়েবসাইট
লিওনেল মেসি নেই। গঞ্জালো হিগুয়েন, অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়া, সাজির্ও আগুয়োরোর মত অভিজ্ঞদেরও একাদশে রাখলেন না অন্তবর্তীর্কালীন কোচ লিওনেল স্কালোনি। বৃস্পতিবার প্রীতি ম্যাচে ইরাকের বিপক্ষে তিনি দল সাজালেন তরুণদের দিয়ে। তবে স্কালোনিকে হতাশ করেননি নবাগতরা। গোল করেছেন লাওতারো মাটিের্নজ, রবাতোর্ পেরেইরা, হেরমান পাজ্জেলা এবং ফ্রাঙ্কো সেরভি। তাতে ৪-০ ব্যবধানের বড় জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে আলবিসেলেস্তেরা।

ইরাকের বিপক্ষে বিশ্বকাপে আজেির্ন্টনার অভিজ্ঞ ফুটবলার বলতে শুধু গোলরক্ষক সাজির্ও রোমেরো। তার সঙ্গে রাশিয়া বিশ্বকাপে খেলার অভিজ্ঞতাসম্পন্ন পাওলো দিবালা আর মেক্সি। বাদবাকি সবাই নতুন মুখ। দারুণ পারফরম্যান্সে ভক্তদের মন ভরিয়ে দিয়েছেন তারা। সৌদি আরবের প্রিন্স ফয়সাল বিন ফাহাদ স্টেডিয়ামে ১৮ মিনিটের মাথায় আজেির্ন্টনাকে এগিয়ে দেন মাটিের্নজ। মাকোর্স আকুনার ক্রস থেকে ইরাকের জালে বল জড়িয়ে আন্তজাির্তক গোলের খাতা খোলেন এই স্ট্রাইকার।

দ্বিতীয়াধের্র শুরুতে ব্যবধানটা দ্বিগুণ করে ফেলেন পেরেইরা। তার গোলটিতে অবদান রাখেন জুভেন্টাস তারকা দিবালা। এরপর ৮২ মিনিটে পাজ্জেলার কল্যাণে তৃতীয় গোলের দেখা পায় আজেির্ন্টনা। অতিরিক্ত সময়ে (৯০+১) ইরাকের কফিনে শেষ পেরেকটি ঠুকে দেন সেরভি। প্রায় ২৫ গজ দূর থেকে লক্ষ্যভেদ করে ম্যাচের সবচেয়ে দৃষ্টিনন্দন গোলটি উপহার দেন তিনি।

বিশ্বকাপের পর জাতীয় দলে অনুপস্থিত লিওনেল মেসি। তার ফেরা নিয়ে সৃষ্টি হয়েছে অনিশ্চয়তা। তবে ইরাকের বিপক্ষে তারুণ্যনিভর্র আজেির্ন্টনার এমন জয় দলটির ভক্ত-সমথর্কদের মাঝে নতুন আশার সঞ্চার করেছে। স্কালোনি মনে করছেন, মেসিকে ছাড়া জেতার অভ্যাস গড়ে ওঠা প্রয়োজন আজেির্ন্টনা দলে। এই প্রসঙ্গে ম্যাচ শেষে তিনি বলেন, ‘মেসি বিশ্বসেরা ফুটবলার। আমার বিশ্বাস সে দলে ফিরবে। তবে যদি না ফেরে তবে আমাদের একটি দল হিসেবে খেলতে হবে। যদি আমরা সেটা পারি তবে কেউ আমাদের সহজে হারাতে পারবে না।’

অপর প্রীতি ম্যাচে কিলিয়ান এমবাপের কল্যাণে ঘরের মাঠে আইসল্যান্ডের সঙ্গে ২-২ গোলে ড্র করেছে ফ্রান্স। গুইনগ্যাম্পে বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের প্রায় হারিয়েই দিয়েছিল ভাইকিংসরা। ৩০ মিনিটে বিরকির বিয়ানার্সনের গোলে এগিয়ে যায় দলটি। বিরতির পর ব্যবধান দ্বিগুণ করে ফেলেন কারি আরনাসন। এরপর শত চেষ্টা করেও জালের দিশা পাচ্ছিল না ফ্রান্স। অবশেষে ভাগ্য সহায় হয় তাদের। ৮৬ মিনিটে আত্মঘাতি গোলের সুবাদে ব্যবধানটা কমে আসে। গোলটিতে এমবাপের যথেষ্ট অবদান রয়েছে। পিএসজি তারকার নেয়া জোরালো শট ঠেকাতে গিয়েই নিজেদের জালেই বল জড়িয়ে দেন আইসল্যান্ডের ওনর্ এইজোলফসন। নিধাির্রত সময়ের শেষ মিনিটে এমবাপেরই নেয়া পেনাল্টি থেকে সমতায় ফেরে ফ্রান্স।

এদিকে, উয়েফা নেশন্স লিগে ওয়েলসকে ৪-১ ব্যবধানে বিধ্বস্ত করেছে স্পেন। লা রোজাদের পক্ষে জোড়া গোল করেছেন পাকো আলকাসার। একবার করে জালে বল জড়িয়েছেন ডিফেন্ডার সাজির্ও রামোস আর মাকর্ বাত্রার্।

অপর ম্যাচে পোল্যান্ডকে ৩-২ গোলে হারিয়েছে রোনালদোহীন পতুর্গাল।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
অাইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
close

উপরে