logo
  • শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮

  ক্রীড়া প্রতিবেদক   ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০  

সাফের কঠিন গ্রæপে মেয়েরা

সাফের কঠিন গ্রæপে মেয়েরা
ছেলে ও মেয়েদের সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ সামনে রেখে বৃহস্পতিবার ড্র অনুষ্ঠানে সাফ ও বাফুফের কমর্কতার্রা Ñবাফুফে
চলতি বছরের শেষ দিকে অনুষ্ঠিত হবে সাফ নারী চ্যাম্পিয়নশিপ। যেখানে ৭ দলের চারটি বাংলাদেশের গ্রæপে। বাংলাদেশ আছে গ্রæপ ‘এ’তে। অন্য দলগুলো হলো নেপাল, ভুটান, পাকিস্তান। এরপরই জানা যায় কঠিন গ্রæপে পড়েছে লাল-সবুজের মেয়েরা। গ্রæপ ‘বি’তে আছে ভারত, মালদ্বীপ, শ্রীলংকা। যদিও প্রথমে ঠিক হয়েছিল ১৪ ডিসেম্বর থেকে হবে টুনাের্মন্টটি। তবে সাফ সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুল হক হেলাল বলেছেন, ‘অংশগ্রহণকারী দলগুলোর আপত্তি ছিল। পূবর্ নিধাির্রত সময়ে তাদের অনেকেরই পরীক্ষা থাকায় আমরা আগামী ১৭-২৬ ডিসেম্বর টুনাের্মন্ট করছি।’

গ্রæপিং হলেও টুনাের্মন্টের ভেন্যু এখনও ঠিক হয়নি। এ প্রসঙ্গে হেলাল বলেছেন, ‘আমরা চাই বিভিন্ন দেশ টুনাের্মন্টটিতে অংশগ্রহণ করুক। এবার হোস্ট হিসেবে আমরা শ্রীলংকাকে প্রথম পছন্দে রেখেছি। নেপালও আগ্রহী। শ্রীলংকা না করলে নেপালে হবে টুনাের্মন্ট। এছাড়া ভারত, পাকিস্তানও আগামী বছর থেকে টুনাের্মন্ট করতে চাচ্ছে। বাংলাদেশও চেয়েছিল এবার সাফ আয়োজন করতে। তবে বিভিন্ন টুনাের্মন্টের ব্যস্ততার কারণে সম্ভব হয়নি। আমরা এ মাসের মধ্যে হোস্ট বাছাই করব। হোস্ট দিয়ে টুনাের্মন্ট শুরু করব তাই ফিক্সচার এখনও করা হয়নি।’

গত চার আসরের সবগুলো শিরোপা জিতেছে ভারত। বাংলাদেশের সেরা সাফল্য গতবার রানাসর্আপ হওয়া। তার আগের তিন আসরে রানাসর্আপ হয়েছিল নেপালের মেয়েরা।

২০১৬ সালে শিলিগুঁড়িতে হওয়া প্রতিযোগিতায় গ্রæপ পবের্ ভারতের সঙ্গে গোলশূন্য ড্র করেছিলেন সাবিনা-কৃষ্ণারা। কিন্তু ফাইনালে স্বাগতিকদের সঙ্গে পেরে ওঠেনি; হেরে যান ৩-১ গোলে।

একইদিনে অনুষ্ঠিত হয় ছেলেদের সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের ড্র। ছেলেদের সাফ অনূধ্বর্-১৫ ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপে ‘এ’ গ্রæপে বাংলাদেশের সঙ্গে আছে গতবারের রানাসর্আপ নেপাল। গ্রæপের বাকি দুই দল মালদ্বীপ ও পাকিস্তান। গ্রæপ ‘বি’তে আছে তিন দল ভারত, ভুটান ও শ্রীলংকা। সিনিয়র সাফ টুনাের্মন্টের মতোই অনূধ্বর্ ১৫ সাফে বালাদেশের গ্রæপটা বেশ কঠিন। অন্যদিকে সুবিধাজনক গ্রæপে আছে ভারত। তাদের গ্রæপে দলও একটি কম।

ছেলেদের সাফ অনূধ্বর্ ১৫ চ্যাম্পিয়নশিপ শুরু হতে যাচ্ছে আগামী ২৫ অক্টোবর থেকে। চলবে ৩ নভেম্বর পযর্ন্ত। নেপালে অনুষ্ঠেয় এ টুনাের্মন্টের গ্রæপিং ড্র অনুষ্ঠিত হয় বৃহস্পতিবার বাফুফে ভবনে। যেখানে উপস্থিত ছিলেন সাফ সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুল হক হেলাল, বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম সোহাগ ও ভুটান ফুটবল ফেডারেশনের সহ সাধারণ সম্পাদক বিন্দু দজির্।

গতবার নেপালের আনফা কমপ্লেক্সে ভুটানকে ৮-০ গোলে হারিয়ে তৃতীয় হয়েছিল বাংলাদেশ। এবারের প্রতিযোগিতাও হবে নেপালে। গত আসরের সেমিফাইনালে নেপালের কাছে ৪-২ গোলে হেরেছিল বাংলাদেশ দল। ২০১৫ সালের প্রতিযোগিতায় ভারতকে টাইব্রেকারে হারিয়ে শিরোপা জিতেছিল বাংলাদেশ।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
অাইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

উপরে