logo
রোববার ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ৩১ ভাদ্র ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ২৬ আগস্ট ২০১৯, ০০:০০  

বিদু্যতের প্রি-পেইড মিটারে হয়রানি বন্ধের দাবি

যাযাদি রিপোর্ট

প্রি-পেইড মিটারে হয়রানি বন্ধের দাবি জানিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছে প্রি-পেইড মিটার সংযোগ প্রতিরোধ কমিটি নামক একটি সংগঠন।

রোববার জাতীয় প্রেসক্লাবে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তারা এ দাবি জানান।

সংবাদ সম্মেলনে বক্তারা বলেন, প্রি-পেইড মিটারে প্রতি ১০০০ টাকা রিচার্জে ২০ টাকা কমিশন দিতে হয়। প্রতিমাসে ভাড়া বাবদ ৪০ টাকা করে কেটে নেয়া হয়। এটা কতদিন পর্যন্ত নেবে তা আমরা জানি না। প্রতি ১০০০ টাকায় কত ইউনিট বিদু্যৎ পাব তা আমাদের জানা নেই, তা বোঝারও কোনো উপায় নাই। ব্যালেন্স শেষ হয়ে গেলে ২০০ টাকা ইমারজেন্সি ব্যালেন্স নিলে তার বিপরীতে ৫০ টাকা সুদ দিতে হয়। এছাড়াও প্রি-পেইড মিটার লক হলে বার বার অভিযোগ করলেও আমলে নেয় না কর্তৃপক্ষ। তারপরও লক খুলতে হলে অফিসে ৬০০ টাকা জমা দিতে হয়। এসব ভোগান্তি থেকে আমরা মুক্তি চাই।

তারা আরও বলেন, এই মিটার থেকে আমরা কোনো প্রকার সুযোগ-সুবিধা পাচ্ছি না। তাই সরকারের কাছে আবেদন প্রি-পেইড মিটার আমরা চাই না। আমরা আগের মিটারেই ভালো আছি, মাস শেষ হওয়ার সাথে সাথেই টাকা পরিশোধ করে দিচ্ছি তাহলে প্রি-পেইড মিটারের কেন দরকার?

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত আয়োজক সংগঠনের আহ্বায়ক হাজি মোহাম্মদ শাহজাহান সিকদার, সদস্য হাজি মুহাম্মদ শহীদুলস্নাহ, হাফিজ উদ্দিন হাওলাদার, বাহারানে সুলতান বাহার প্রমুখ।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে