logo
রোববার ২৫ আগস্ট, ২০১৯, ১০ ভাদ্র ১৪২৬

  যাযাদি ডেস্ক   ১৭ জুলাই ২০১৯, ০০:০০  

ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান

'মাটি-পাথর মিশিয়ে' টিএসপি সার

'মাটি-পাথর মিশিয়ে' টিএসপি সার
সোমবার চট্টগ্রামের হাদিপাড়া এলাকায় মেসার্স সিদ্দিক এন্টারপ্রাইজে অভিযান চালান জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তাহমিলুর রহমান -যাযাদি
চট্টগ্রাম নগরীর পতেঙ্গা এলাকায় দুটি গুদামে অভিযান চালিয়ে চারশ টন 'ভেজাল' সার জব্দ করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

র্

যাব-৭ এর সদস্যদের সঙ্গে নিয়ে সোমবার রাতে পতেঙ্গা থানাধীন টিএসপি গেইটের খাল পাড় হাদিপাড়া এলাকায় মেসার্স সিদ্দিক এন্টারপ্রাইজ ও মেসার্স রায়হান অ্যান্ড ব্রাদার্সের গুদামে এ অভিযান চালান জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তাহমিলুর রহমান।

অভিযানে সিদ্দিক এন্টারপ্রাইজের মালিক ওসমান গণি রিপনকে (৪১) আটক করে এক বছরের কারাদন্ড এবং দুই লাখ টাকা জরিমানা করে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

অভিযান চলাকালে তার ভাই ও রায়হান ব্রাদার্সের মালিক ওমর ফারুক খোকন পালিয়ে যান বলে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জানান।

তিনি বলেন, প্রতিষ্ঠান দুটি সার পরিবহনের ঠিকাদার। তারা পতেঙ্গার টিএসপি কারখানা থেকে সার সংগ্রহ করে তার সঙ্গে মাটি-পাথর মিশিয়ে প্যাকেটজাত করে আসছিল।

"প্রতি ৫০ কেজির বস্তার সাথে ১০০ কেজি মাটি-পাথর মিশিয়ে দেড়শ' কেজি ভেজাল সার বানাত তারা। তারপর গোডাউনে নকল টিএসপির প্যাকেটে সংরক্ষণ করা হতো।"

তাহমিলুর জানান, সার ব্যবস্থাপনা আইন অনুসারে ওসমান গণিকে দুই লাখ টাকা জরিমানা এবং এক বছরের সশ্রম কারাদন্ড দেয়া হয়।

তিন বছর আগে একই অপরাধে তাকে ৬০ হাজার টাকা জরিমানা করেছিল ভ্রাম্যমাণ আদালত।

জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, চট্টগ্রামে ৭৬ জন ঠিকাদার সার পরিবহনে যুক্ত, যাদের অনেকের বিরুদ্ধেই ভেজাল মেশানোর অভিযোগ রয়েছে।

যে দুটি প্রতিষ্ঠানে অভিযান চালানো হয়েছে, তারা সারাদেশে প্রায় ৫০০ ডিলারকে টিএসপি সার সরবরাহ করে।

র্

যাব ছাড়াও এনএসআই, টিএসপি সার কারখানার প্রতিনিধি ও কৃষি কর্মকর্তারা এ অভিযানে উপস্থিত ছিলেন।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে