logo
রবিবার, ১৯ জানুয়ারি ২০২০, ৬ মাঘ ১৪২৭

  অনলাইন ডেস্ক    ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ০০:০০  

যশোরে সালিশ থেকে ডেকে নিয়ে যুবক খুন

স্টাফ রিপোর্টার, যশোর

যশোরে সালিশি বৈঠক থেকে ডেকে নিয়ে ছুরিকাঘাতে জনি হোসেন (২৮) নামে যুবককে হত্যা করা হয়েছে। সোমবার রাতে সদর উপজেলার নরেন্দ্রপুর গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। নিহত জনি একই এলাকার সিরাজুল ইসলামের ছেলে। ঘটনাস্থল থেকে একটি মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হয়েছে।

নিহতের স্বজনরা জানান, নরেন্দ্রপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি জিএম সবুজ হাসান ও বর্তমান সভাপতি শাহিন আলম মাটি কেনাবেচার ব্যবসা করেন। তারা বিভিন্ন গ্রাম থেকে মাটি কিনে ইটভাটাসহ বিভিন্ন স্থানে বিক্রি করেন। সম্প্রতি নরেন্দ্রপুরের হাসিবের জমির মাটি কিনতে চান দুজনই। এ নিয়ে বিরোধের সৃষ্টি হলে সোমবার সন্ধ্যার পর নরেন্দ্রপুর মাস্টারপাড়ায় দুই পক্ষ সমঝোতা বৈঠকে বসে। সেখানে শাহিন মোটরসাইকেল, ইজিবাইক ও ট্রেকারে করে ২০-২২ জন নিয়ে আসে। বৈঠকে সবুজের পক্ষে ছিল জনি। বৈঠক চলাকালে শাহিনের পক্ষের কয়েকজন জনিকে ডেকে পাশে নিয়ে বুকে ছুরিকাঘাত করে। ঘটনাস্থলে তার মৃতু্য হয়। এ সময় গ্রামবাসী ধাওয়া করলে শাহিন ও তার পক্ষের লোকজন পালিয়ে যায়। তবে শাহিনের একটি পায়ে সমস্যা থাকায় তিনি তাৎক্ষণিক তার মোটরসাইকেল নিতে না পেরে অন্য বাহনে পালায়। ঘটনাস্থল থেকে তার মোটরসাইকেল উদ্ধার হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে কোতয়ালি থানার ওসি মনিরুজ্জামান বলেন, এলাকায় দুই পক্ষের দ্বন্দ্বের জেরে জনিকে ছুরিকাঘাতে খুন করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। মাটি বেচাকেনা নিয়ে দ্বন্দ্ব ছিল। তারই জেরে হত্যাকান্ড ঘটেছে। এই ঘটনায় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। নিহতের পিতা থানায় এসেছিল, এখনও মামলা রেকর্ড হয়নি। তবে ঘটনাস্থল থেকে একটি মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হলেও মালিক শনাক্ত হয়নি।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে