logo
রোববার ২৫ আগস্ট, ২০১৯, ১০ ভাদ্র ১৪২৬

  বাগেরহাট সদর সংবাদদাতা   ১৯ মে ২০১৯, ০০:০০  

বাগেরহাটে গাছের সঙ্গে বাসের ধাক্কা, নিহত ৬

বাগেরহাটে গাছের সঙ্গে বাসের ধাক্কা, নিহত ৬
খুলনা-মাওয়া মহাসড়কে দুর্ঘটনা কবলিত বাস
বাগেরহাটের ফকিরহাটে খুলনা-মাওয়া মহাসড়কে এক মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় বাস চালকসহ ৬ জন নিহত ও অন্তত ১৫ যাত্রী আহত হয়েছে। শনিবার সকালে খুলনা-মাওয়া মহাসড়কের ফকিরহাট উপজেলার ফলতিতা বাজারের কাকডাঙ্গা নামক স্থানে যাত্রীবাহী বাসের চাকা ফেটে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সাথে ধাক্কা লেগে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতদের মধ্যে ৪ জনের নাম পরিচয় জানা গেছে। এরা হচ্ছে- বাগেরহাট সদর উপজেলার যাত্রাপুর ইউনিয়নের কোদলা গ্রামের হেকমত আলী বিশ্বাস (৪৫), খুলনার কয়রা থানার অর্জুনপুর এলাকার কুদ্দুস সরদার (৬০) ও বাসের চালক খুলনা রূপসা থানার নৈহাটি এলাকার ফরহাদ শেখ (৪৫), কয়রা এলাকার দেলোয়ার হোসেন (৪৭)। এছাড়া এক মহিলা ও এক পুরুষ যাত্রীর পরিচয় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত পাওয়া যায়নি।

দুর্ঘটনার খবর পেয়ে বাগেরহাট ও ফকিরহাটসহ ফায়ার সার্ভিসের ৪টি ইউনিট ও পুলিশ সদস্যরা আহতদের উদ্ধার করে ১২ জনকে খুলনা মেডিকেল কলেজ ও ৩ জনকে ফকিরহাট হাসপাতালে ভর্তি করে। নিহতদের লাশ উদ্ধার করে ফকিরহাট থানায় পাঠায়।

ফকিরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু জিহাদ জানান, খুলনা থেকে মোলস্নাহাটের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসা যাত্রীবাহী বাস (বগুড়া ব-৪৭৪৫) সকাল ১০টার দিকে ফকিরহাট উপজেলার ফলতিতার কাকডাঙ্গা নামক স্থানে পৌঁছালে সামনের চাকার টায়ার ফেটে গাছের সাথে সজোড়ে ধাক্কা দেয়। এ সময় বাসটি পড়ে উল্টে গেলে ঘটনাস্থলেই চালকসহ ৫ জন ও পরে ফকিরহাট হাসপাতালে আরও এক জনের মৃতু্য হয়।

বাগেরহাট ফায়ার সার্ভিসের উপ-সহকারী পরিচালক সরদার মাসুদ ঘটনাস্থল জানান, যাত্রীবাহী বাস দুর্ঘটনার পর হতাহতদের উদ্ধারে বাগেরহাট ও ফকিরহাট ফায়ার সার্ভিসের ৪টি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে উদ্ধার অভিযানে অংশ নেয়। এ সময় গুরুত্বর আহতদের উদ্ধার করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। দুর্ঘটনায় ঘটনাস্থলেই ৫ জন মারা গেলেও পরে ফকিরহাট হাসপাতালে অজ্ঞাত এক পুরুষ (৪০) মৃতু্য হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছেন, বাসটি বেপরোয়া গতিতে চলছিল। এটি কাকডাঙ্গায় রাস্তার পাশে এক দিনমজুরকে চাপা দিয়ে গাছের সঙ্গে ধাক্কা লেগে উল্টে যায়।

মূলঘর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিটলার গোলদার বলেন, গাড়িটি দেখে মনে হচ্ছিল গাড়িটি লক্কড়ঝক্কড় অবস্থা। দ্রম্নতগতিতে গাড়ি চালিয়ে এসেই কাকডাঙ্গা এলাকায় এসে দুর্ঘটনায় পড়ে। মহাসড়কে এ ধরনের লক্কড়ঝক্কড় গাড়ি চলাচলেই এ দুর্ঘটনা ঘটছে।

এই দুর্ঘটনায় আহতদের ফরিহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এদের মধ্যে কয়েকজনের অবস্থা

আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন ফকিরহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সের চিকিৎসক মো. তারিফ উদ্দীন।

তিনি বলেন, 'দুর্ঘটনায় আহত ১৫ থেকে ২০ জনকে হাসপাতালে আনা হয়। আনার পর একজনের মৃতু্য হয়। আহতদের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এদের মধ্যে পাঁচ থেকে সাত জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে