logo
শনিবার ২০ জুলাই, ২০১৯, ৫ শ্রাবণ ১৪২৬

  যাযাদি রিপোর্ট   ২৪ জুন ২০১৯, ০০:০০  

বিএনপির কাউন্সিল অক্টোবরে, ছাত্রদলের সম্মেলন ১৫ জুলাই

দ্রম্নত সময়ের মধ্যে দলের সপ্তম জাতীয় কাউন্সিল করতে চায় বিএনপি। আগস্টে পবিত্র ঈদুল আজহার আগে কাউন্সিল করার পরিকল্পনা থাকলেও স্বল্প সময়ের মধ্যে তা সম্ভব নাও হতে পারে এমন বিবেচনায় অক্টোবরের মধ্যে তা সম্পন্ন করতে চায় দলটি। আগামী শনিবার দলের জাতীয় স্থায়ী কমিটির বৈঠকের আলোচনায় কাউন্সিল প্রস্তুতির বিষয়টি সবচেয়ে বেশি প্রাধান্য পাবে।

গত শনিবার দ্রম্নত সময়ের মধ্যে কাউন্সিল করার ঘোষণা দেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। এ নিয়ে রাতে স্থায়ী কমিটির বৈঠকে আলোচনাও হয়। অধিকাংশ সদস্য ঈদুল আজহার আগেই কাউন্সিল করার পক্ষে মত দেন। বৈঠকে স্কাইপিতে যুক্ত হওয়া ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানও নীতি-নির্ধারকদের মতে আপত্তি করেননি।

কবে নাগাদ কাউন্সিল হতে পারে জানতে চাইলে বিএনপি মহাসচিব রোববার বিকেলে যায়যায়দিনকে বলেন, দ্রম্নত সময়ের মধ্যে দলের জাতীয় কউন্সিল করতে চায় বিএনপি। তবে এখনও সুনির্দিষ্ট কোনো তারিখ ঠিক হয়নি। কাউন্সিলের আগে মূল কাজ হচ্ছে জেলা কমিটিগুলো আপডেট করা। এগুলো প্রায় শেষের দিকে। পুরোপুরি সম্পন্ন হলেই কাউন্সিল করা যাবে। এগুলো শেষ হলে কাউন্সিলের প্রস্তুতি ১ মাসের মধ্যে সম্পন্ন করা যাবে।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির এক নেতা বলেন, দ্রম্নত জাতীয় কাউন্সিল হোক তা চান বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। আর দলের নেতারা খালেদা জিয়াকে নিয়েই কাউন্সিল করতে চান। ঈদুল আজহার আগেই খালেদা জিয়া মুক্ত হবেন এমনই আশা করছেন নেতারা। এজন্য কাউন্সিল প্রস্তুতি আগে থেকেই সম্পন্ন করে রাখার কথা ভাবা হচ্ছে। দলীয় প্রধানের মুক্তির পর দ্রম্নত সময়ের মধ্যে কাউন্সিল হবে। এক্ষেত্রে আগামী অক্টোবরেই দলের সপ্তম জাতীয় কাউন্সিল করার সমূহ সম্ভাবনা রয়েছে।

ছাত্রদলের কাউন্সিল ১৫ জুলাই

এছাড়া আগামী ১৫ জুলাই বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের কাউন্সিল অনুষ্ঠিত হবে। এদিন সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৩টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে ভোট গ্রহণের মধ্যে দিয়ে চলবে কাউন্সিল।

নির্বাচন পরিচালনা কমিটির প্রধান বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন রোববার নয়াপল্টনে বিএনপি কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দেন।

তিনি বলেন, কাউন্সিল উপলক্ষে আগামী ২৪ জুন ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হবে। ২৫ জুন ভোটার তালিকার বিষয়ে আপত্তি গ্রহণ, ২৭ ও ২৮ জুন প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র বিতরণ, ২৯ ও ৩০ জুন সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত প্রার্থীদের কাছ থেকে মনোনয়ন গ্রহণ, প্রার্থিতা যাচাই-বাছাই হবে ১, ২ ও ৩ জুলাই, প্রার্থীদের খসড়া তালিকা প্রকাশ ৪ জুলাই, প্রার্থীদের সম্পর্কে আপত্তি গ্রহণ ৫ জুলাই, প্রার্থীদের সম্পর্কে আপত্তি নিষ্পত্তি ৬ জুলাই, ৭ জুলাই প্রার্থীদের চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ। প্রার্থীরা ১৩ জুলাই রাত ১২টা পর্যন্ত প্রচারণা চালাতে পারবেন।

সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান এবং ছাত্রদল কমিটি গঠনের সার্চ কমিটির প্রধান শামসুজ্জামান দুদু বলেন, ভোট গ্রহণের স্থান এখনও আলোচনার পর্যায়ে রয়েছে।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, বিবাহিতরা ছাত্র নয়, তারা প্রার্থী হতে পারবেন না।

সংবাদ সম্মেলনে ছাত্রদলের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে