logo
মঙ্গলবার ২২ জানুয়ারি, ২০১৯, ৯ মাঘ ১৪২৫

  পীরগঞ্জ (ঠাকুরগাঁও) সংবাদদাতা   ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০  

পীরগঞ্জে স্কুলছাত্রীর বাল্যবিয়ে ভেঙে দিলেন ইউএনও

পীরগঞ্জে এক স্কুলছাত্রীর বাল্যবিয়ে ভেঙে দিল প্রশাসন। বৃহস্পতিবার রাতে পৌর শহরের রঘুনাথপুর মুন্সিপাড়া মহল্লায় পাইলট স্কুলে ৮ম শ্রেণির ছাত্রী জেমি আখতারের বিয়ে বন্ধ করে দেন ইউএনও এ ডবিøউ এম রায়হান শাহ্।

মেয়ের বাবা জামাল উদ্দীন জানান, মেয়েকে বিয়ে করার জন্য বরযাত্রীও এসেছিল। বিয়ে বন্ধ করতে প্রশাসন আসছে জেনে বরযাত্রীরা যে যার মতো পালিয়ে যায়। কিছুক্ষণের মধ্যে ইউএনও এসে বিয়ে ভেঙে দেন। নাবালিকা মেয়েকে বিয়ে দেয়া অপরাধ তা তার জানা ছিল না। ইউএনও এ ডবিøউ এম রায়হান শাহ্ জানান, মেয়ের বাবা জামাল তার নাবালিকা মেয়ে বিয়ে দিতে আয়োজন করে। কিন্তু গোপনে জানতে পারি ৮ম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীর বিয়ে হচ্ছে। তিনি গিয়ে ওই নাবালিকার বিয়ে ভেঙে দেই। অবশ্য মেয়েও বিয়েতে রাজি ছিল না বলে আমাকে জানায়। মেয়ের বাবা জামাল তার মেয়ে জেমি কে ১৮ বছরের আগে বিয়ে দেবে না বলে অঙ্গীকারনামা দিয়েছেন।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
অাইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
close

উপরে