logo
বৃহস্পতিবার, ০২ এপ্রিল ২০২০, ১৯ চৈত্র ১৪২৫

  যাযাদি ডেস্ক   ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০০:০০  

টানা তৃতীয় মেয়াদ

দিলিস্নর মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিলেন কেজরিওয়াল

দিলিস্নর মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিলেন কেজরিওয়াল
শপথ মঞ্চে অরবিন্দ কেজরিওয়াল
টানা তৃতীয় মেয়াদে ভারতের রাজধানী দিলিস্নর মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিয়েছেন আম আদমি পার্টির (আপ) প্রধান অরবিন্দ কেজরিওয়াল। রোববার দিলিস্নর ঐতিহাসিক রামলীলা ময়দানে বিপুল জনসমাগমের মধ্যে তার শপথগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে আমন্ত্রণ জানালো হলেও তিনি আসেননি। সংবাদসূত্র : এনডিটিভি

এদিন কেজরিওয়ালের পাশাপাশি শপথ নিয়েছেন ছয় মন্ত্রীও। তারা হলেন- মণীষ সিসোদিয়া, সত্যেন্দ্র জৈন, গোপাল রাজ, কৈলাশ গেহলট, ইমরান হুসাইন ও রাজেন্দ্র গৌতম। এবারের বিধানসভা নির্বাচনে দিলিস্নর ৭০টি আসনের মধ্যে ৬২টি আসনে জয় পেয়েছে আম আদমি পার্টি। বিজেপি পেয়েছে মাত্র ৮টি। ২০১৫ সালের নির্বাচনে ৬৭ আসন পেয়েছিল আপ।

এই বিজয় জনগণকে উৎসর্গ করে অরবিন্দ কেজরিওয়াল বলেন, 'নির্বাচন শেষ, আপনি কাকে ভোট দিয়েছেন সেটা বিষয় নয়। দলগত পার্থক্য কখনোই আমাকে কারও জন্য কাজ করা থেকে বিরত রাখতে পারেনি। এখন সবাই আমার পরিবারের সদস্য।'

এদিন দিলিস্নর লালকেলস্না সংলগ্ন রামলীলা ময়দানের অন্যতম আকর্ষণ ছিল 'শিশু মাফলারম্যান'। শিশুটির কেজরিওয়াল সাজের ছবি গত মঙ্গলবার নির্বাচনের ফল ঘোষণার দিন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়। এছাড়া শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন প্রায় ৫০ জন স্কুলশিক্ষক, চিকিৎসক, পরীক্ষায় শীর্ষস্থান অধিকারী, অটোচালক, পরিচ্ছন্নতাকর্মীরা। 'দিলিস্নর নির্মাতা' হিসেবে তাদের মঞ্চে আমন্ত্রণ জানানো হয়।

বিখ্যাত রামলীলা ময়দানেই রাজনৈতিক যাত্রার সূচনা হয়েছিল ৫১ বছরের কেজরিওয়ালের। এখানেই আন্না হাজারের নেতৃত্বে দুর্নীতিবিরোধী আন্দোলনে শামিল হয়েছিলেন তিনি। ২০১৩ সালে তার প্রথম শপথগ্রহণ অনুষ্ঠান হয়েছিল রামলীলা ময়দানে। ২০১৫ সালের শপথও হয়েছিল একই জায়গায়।

বিনামূল্যে জনগণের কাছে বিভিন্ন পরিষেবা পৌঁছে দিয়েই বাজিমাত করেছেন কেজরিওয়াল, বিরোধীদের এমন সমালোচনার জবাবে তিনি বলেন, 'পৃথিবীতে যা কিছু অমূল্য, ঈশ্বর তা বিনামূল্যেই দিয়েছেন। সরকারি স্কুলের শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে অর্থ নেব কেন? হাসপাতালে বিনামূল্যে কেন চিকিৎসা পাবে না মানুষ? কেজরিওয়াল দিলিস্নবাসীকে ভালোবাসেন, দিলিস্নবাসীও কেজরিওয়ালকে ভালোবাসে, এই ভালোবাসার কোনো মূল্য হয় না।'
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে