logo
শনিবার ২৪ আগস্ট, ২০১৯, ৯ ভাদ্র ১৪২৬

  যাযাদি ডেস্ক   ১৫ আগস্ট ২০১৯, ০০:০০  

বিক্ষোভে অচল হংকং বিমানবন্দর স্বাভাবিক হচ্ছে

টানা পাঁচ দিন তুমুল বিক্ষোভে অচল থাকা হংকং বিমানবন্দর বুধবার সকাল থেকে স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে। এদিন, নির্ধারিত সময়সূচি অনুযায়ী বিমানবন্দর থেকে বিভিন্ন গন্তব্যের ফ্লাইট ছেড়ে যেতে দেখা গেছে। তবে, সহিংস বিক্ষোভের কারণে মঙ্গলবার শতাধিক ফ্লাইট বাতিল হওয়ায় এখনো বিলম্বিত কিংবা বাতিল হচ্ছে বেশ কিছু ফ্লাইট। সংবাদসূত্র : বিবিসি, রয়টার্স

এদিকে, বিক্ষোভ দমনে এবং পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে বিমানবন্দর এলাকা এবং এর অভ্যন্তরে যাত্রী ছাড়া সাধারণ প্রবেশের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে।

এর আগে, মঙ্গলবার বিমানবন্দরে চলমান অচলাবস্থার মধ্যেই পুলিশের সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের ব্যাপক সংঘর্ষ হয়। সেদিন স্থানীয় সময় সন্ধ্যায় আহত একজনকে চিকিৎসার জন্য বিমানবন্দরের প্রধান টার্মিনালে নিয়ে যাওয়া হলে, পুলিশ ও বিক্ষোভকারীদের মধ্যে সংঘর্ষ শুরু হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে তখন পিপার স্প্রে (মরিচের গুঁড়া) ব্যবহার করে পুলিশ।

এদিকে, বিক্ষোভকারীদের ওপর শক্তি প্রয়োগের বিষয়ে হংকং প্রশাসনকে সংযত থাকার আহ্বান জানিয়েছে জাতিসংঘ। জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক হাইকমিশনার মিশেল ব্যাচেলে মঙ্গলবার বিক্ষোভকারীদের ওপর শক্তি প্রয়োগের ব্যাপারে হংকংকে সংযত থাকা এবং বিক্ষোভ দমনে পুলিশের যেনতেনভাবে কাঁদানে গ্যাস ছুড়ে মারার বিষয়টি তদন্ত করে দেখারও আহ্বান জানান।

ব্যাচেলে বলেন, 'পুলিশকে বদ্ধ জায়গায় বিভিন্ন সময়েই জনতার ভিড়ে সরাসরি মানুষের ওপর টিয়ার গ্যাস ক্যানিস্টার ছুড়ে মারতে দেখা গেছে। এভাবে ছোড়া কাঁদানে গ্যাসের শেলে মানুষের মারাত্মকভাবে আহত হওয়া এবং মৃতু্যরও ঝুঁকি আছে। আর তা আন্তর্জাতিক আইনেরও পরিপন্থি।'

চীনে বন্দি প্রত্যর্পণ নিয়ে দুই মাস আগে প্রস্তাবিত একটি বিল বাতিলের দাবিতে উত্তাল হয়ে ওঠা হংকংয়ের বিক্ষোভ এখন স্বাধীনতা আন্দোলনের রূপ নিয়েছে। বিক্ষোভের মুখে প্রধান নির্বাহী ক্যারি লাম ওই বিলকে 'মৃত' ঘোষণার পরও আন্দোলন থামছে না।

এদিকে, হংকংকে 'রসাতলে' নিয়ে যাবেন না বলে সরকারবিরোধী বিক্ষোভকারীদের নতুন করে সতর্ক করে দিয়েছেন নেতা ক্যারি লাম। মঙ্গলবার এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ সতর্কবার্তা দেন। এ সময় প্রায় কাঁদো কাঁদো হয়ে হংকংবাসীকে মতবিরোধ দূরে সরিয়ে রাখার আহ্বান জানান লাম।

তিনি বলেন, 'হংকং একটি বিপজ্জনক পরিস্থিতিতে পৌঁছেছে।' বিক্ষোভের সময় সহিংসতার কারণে হংকং এমন এক 'অতল গহ্বরের' দিকে তলিয়ে যাচ্ছে; যেখান থেকে আর ফিরে আসার পথ নেই। এক মিনিট চিন্তা করুন, নগরীর দিকে তাকিয়ে দেখুন, আমাদের ঘরবাড়িগুলোর দিকে তাকিয়ে দেখুন- আপনারা কি সত্যি চান সব রসাতলে যাক?'

হংকং আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে সরকারবিরোধীদের টানা পঞ্চম দিনের বিক্ষোভে শত শত ফ্লাইট বাতিল এবং চেক ইন বন্ধ হয়ে যাওয়ার পর ক্যারি লাম বিক্ষোভকারীদের উদ্দেশে একথা বলেন।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে