logo
মঙ্গলবার, ০৪ আগস্ট ২০২০, ২০ শ্রাবণ ১৪২৬

  মাসুদুর রহমান   ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০০:০০  

বসন্তের ছোঁয়া লাগলো মনে...

বসন্তের ছোঁয়া লাগলো মনে...
আশনা হাবিব ভাবনা
'আহা আজি এ বসন্তে/ এত ফুল ফোটে/ এত বাঁশি বাজে/ এত পাখি গায় আহা আজি এ বসন্তে'- কবিগুরু রবীন্দ্রনাথের এই গানের মতোই যেন বসন্ত লেগেছে অভিনেত্রী আশনা হাবিব ভাবনার জীবনে। বসন্তের মতোই যেন সজিবতায় পরিপূর্ণ তিনি। ফুরফুরে মেজাজে, উৎফুলেস্ন কাটছে তার দিন-রাত। দুরন্ত পাখির মতো ছুটে চলছে তার মনপাখি। বাধাহীন এই জীবনে নিজেকে বেঁধেছেন ভালোবাসার সুতোয়। অনেক আগে থেকে শোবিজাঙ্গনে ভেসে বেরিয়েছে নির্মাতা অনিমেষ আইচের সঙ্গে ভাবনার ভাব বিনিময়ের খবর। প্রণয় থেকে পরিণয়ের গুঞ্জনও রটে। সত্য নয়, জাস্ট ফ্রেন্ড, গুজবে গুঞ্জন বলে উড়িয়ে দিয়েছেন এই অভিনেত্রী। বলেছেন, 'আমাকে নিয়ে যেসব গুজব রটে তা নিয়ে আমার কিছু বলার নেই। কিছু ব্যক্তি ও অখ্যাত মিডিয়া আমাকে নিয়ে মিথ্যা খবর প্রচার করে- যা বিশ্বাস যোগ্য নয়।' কিন্তু এতদিনে বসন্তের ফাগুনের নির্মল হাওয়ার মতোই ভাবনা জানিয়ে দিলেন ভালোবাসার খবর। সম্প্রতি ভাবনা তার ফেসবুকে অনিমেষের সঙ্গে তার কিছু ছবি প্রকাশ করেছেন। গত ২৩ জানুয়ারি রাত ৯টা ৪৪ মিনিটে ভাবনার ফেসবুকে ভেসে উঠে 'ইন এ রিলেশনশিপ উইথ অনিমেষ আইচ'! বিষয়টি প্রকাশের পর নতুন করে আলোচনায় আসেন ভাবনা। হঠাৎ করে ফেসবুকে অনিমেষ আইচের সঙ্গে সম্পর্কের ঘোষণা নিয়ে এই আলোচিত অভিনেত্রী বলেন, 'এটা ঘোষণা নয়, রিলেশনশিপ স্ট্যাটাস আপডেট করেছি কেবল। ফেসবুকে যারা আমার সঙ্গে যুক্ত, শুধু তারাই ব্যাপারটা দেখেছেন। আমি কখনোই আমার সম্পর্ক নিয়ে কিছু লুকাইনি। আমি বিশ্বাস করি, ভালোবাসা প্রকাশের মধ্যে লজ্জার কিছু নেই। কাউকে ভালোবাসি, সেটা লুকিয়ে রাখা মানে সম্পর্কটাকে অসম্মান করা। অথচ আমার সঙ্গে কথা না বলেই কিছু পত্রিকা আমাদের সম্পর্ক নিয়ে এমন সস্তা সব বাক্য লিখেছে- যা দেখে ভীষণ কষ্ট পেয়েছি। আমার কাছে ভালোবাসাটা অনেক সম্মানের একটা সম্পর্ক।' ফেসবুকে ভাবনার ছবি প্রকাশের পর হইচই পড়ে যায় মিডিয়া পাড়ায়। অবশেষে সত্যকে প্রকাশ করার জন্য ভাবনাকে ধন্যবাদও দেন কেউ কেউ। সেই সঙ্গে কৌতূহল জাগে সবার মাঝে 'ভাবনা-অনিমেষের বিয়ে কবে'। শোনা যাচ্ছে তাদের বিয়ে নাকি আসছে ভালোবাসা দিবসেই হচ্ছে। চমক দেওয়ার জন্যই বিষয়টি প্রকাশ করছেন না তারা। বিয়ের জন্য এ দিনটি খুঁজে নেওয়ার কারণও আছে। এক দিকে এইদিন বিশ্ব ভালোবাসা দিবস অন্যদিক পহেলা ফাল্গুন। তাদের বিয়েকে স্মরণীয় করে রাখতেই এই দিন বিয়ে হচ্ছে তাদের। এ বিষয়ে ভাবনা বলেন, 'বিয়ে আমরা করব নিশ্চয়ই। তবে কবে করব, জানি না। কোনো পস্ন্যান করিনি। এটা আলস্নাহর হাতে। তিনি যখন চাইবেন তখনই হবে। বিয়ে যখন করতে হবে তখন অবশ্যই সবাইকে জানিয়ে করব। আমি যেহেতু শোবিজের লোক তাই বিষয়টি গোপন থাকবে না।'

তবে এ বছর অবশ্যই অনিমেষ একটা নতুন সিনেমা করবেন বলে জানান ভাবনা। ভাবনা নাটকে অভিনয় করলেও চলচ্চিত্রে অভিষেক হয়েছি অনিমেষ আইচের ছবি দিয়েই। ২০১৭ সালে 'ভয়ংকর সুন্দর' ছবিতে ভাবনাকে দেখা যায় কেন্দ্রীয় চরিত্রে। এ ছবির পর নতুন আর কোনো ছবিতে অভিনয় করেননি এই অভিনেত্রী। তবে কি এবারও অনিমেষের ছবিতে অভিনয় করছেন তিনি? এ নিয়ে ভাবনা বলেন, 'বিষয়টি আমি জানি না।' স্পষ্ট করে না বললেও ভাবনার কথার ঈঙ্গিত মেলে তিনিই হচ্ছেন অনিমেষের দ্বিতীয় ছবির প্রধান নায়িকা।

নতুন সিনেমায় অভিনয় শুরু না করলে ভাবনা অভিনয় করছেন নতুন নতুন নাটকে। ভালোবাসা দিবসের একাধিক নাটকে দেখা যাবে বলে জানান তিনি। বলেন, 'অভিনয়েই নিজেকে ব্যস্ত রেখেছি। ধারাবাহিক ও খন্ড নাটকে কাজ করছি। আজ (মঙ্গলবার) শামীমের পরিচালনায় 'ভালোবাসার ঘর' শিরোনামে ভালোবাসা দিবসের একটি নাটকে অভিনয় করছি। এতে আমার সহশিল্পী শামীম সরকার। ধারাবাহিক 'বোকা ভূতে'র শুটিং শেষ করেছি। আরও একটি নতুন ধারাবাহিকে কাজ করার কথা চলছে। ভালো চিত্রনাট্য পাই না বলে খুব বেশি কাজ করা হয় না।' 'বোকা ভূত' ধারাবাহিক নাটকটি নির্মিত হয়েছে দুরন্ত টিভির জন্য। পরিচালনা করেছেন অনিমেষ আইচ। শিশুতোষ হলেও এটি একটি ফ্যামেলি ড্রামা। তারকা বহুল এ ধারাবাহিকে ভাবনাকে দেখা যাবে নাবিলা চরিত্রে। এতে ভাবনার বাবার চরিত্রে রয়েছেন আজিজুল হাকিম।

অভিনয়ের পাশাপাশি ভাবনা লেখালেখিও করেন। তার লেখালেখির অভ্যাসটা সেই ছোটবেলা থেকেই। তার বাবা নাট্য নির্মাতা আহসান হাবিব লেখালেখি করতেন। তা দেখে নিজের মধ্যেও আগ্রহ তৈরি হয়। স্কুল-কলেজে পড়ালেখার পাশাপাশি বিভিন্ন কবিতা ও গল্প লিখতেন। বিভিন্ন পত্রিকাতেও ছাপা হয়েছে। গত দুই বছর ধরে বইমেলায় তার 'গুলনেহার' ও 'তারা' নামের দুটি উপন্যাস প্রকাশিত হয়েছে। প্রথম উপন্যাস প্রকাশের পরপরই তা নাট্যরূপে টিভি পর্দায় আসে। এবারের বইমেলার জন্যও লিখেছেন। এটাও উপন্যাস। নাম 'গোলাপী জমিন'। প্রকাশ করবে তাম্রলিপি। বইটি নিয়ে ভাবনা বলেন, 'আমি প্রতিটি লেখার মধ্যে পাঠকদের কিছু বার্তা দেয়ার চেষ্টা করি। আমার লেখার মাধ্যমে কেউ যদি অনুপ্রেরণা পায়, সেটাই সার্থকতা।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
আইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
close

উপরে