logo
মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯, ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ৩১ অক্টোবর ২০১৯, ০০:০০  

আলোচনার বাইরে সাবা

আলোচনার বাইরে সাবা
সোহানা সাবা
মাসুদুর রহমান

অভিনেত্রী সোহানা সাবা। যার শুরুটা হয়েছিল নাচ দিয়ে। কিন্তু পরিচিতি পান চলচ্চিত্রে অভিষেক হওয়ার পর। কবরী সারোয়ারের প্রথম পরিচালনার ছবি 'আয়না'তে সাবলীল অভিনয় করে বেশ আলোচিতও হন তিনি। এরপর লম্বা সময় চলচ্চিত্র থেকে দূরে সরে গিয়ে ছোটপর্দায় কাজ করেন। পরবর্তী সময়ে 'বৃহন্নলা', 'প্রিয়তমেষু', 'চন্দ্রগ্রহণ'সহ বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্রে অভিনয় করে প্রশংসিত হওয়ার পর নাটক কমিয়ে চলচ্চিত্রে স্থায়ী হওয়ার মিশনে নামেন তিনি। কিন্তু তারপর? তারপরের গল্পটা অনেকটাই আলাদা। কোনো এক রহস্যময় কারণে দেশীয় চলচ্চিত্রে দেখা যায়নি তাকে। চেষ্টা করেন কলকাতার চলচ্চিত্রে নিয়মিত হওয়ার। সেখানেও আহামরি কোনো চাহিদা তৈরি করতে না পারায় ফিরে আসেন দেশীয় বাণিজ্যিক ছবিতে। চলতি বছরের মাঝামাঝিতে মুক্তি পাওয়া তার সর্বশেষ অভিনীত 'আব্বাস' সিনেমাটি আলোচনায় এনে দিতে পারেনি তাকে। বর্তমানে নাটক কিংবা চলচ্চিত্র- কোথাও তেমন দেখা নেই তার। কালেভদ্রে অভিনয় করেন দুয়েকটি নাটকে। নাটক থেকে দূরে থাকা নিয়ে সাবা বলেন, 'এখন টেলিভিশন নাটকে যে ধরনের গল্প ও চরিত্র দেখি সেগুলোতে কাজ করার আগ্রহ পাই না। আমি ক্যারিয়ারের শুরু থেকে চ্যালেঞ্জিং চরিত্রে অভিনয় করতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করতাম। এখনো তেমন চরিত্র খুঁজি। সংখ্যা বাড়ানোর জন্য কাজ করার ইচ্ছে আমার নেই।'

এ অভিনেত্রী সর্বশেষ দীপ্ত টিভির 'মধ্যবর্তিনী-২' শিরোনামের একটি ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় করেছেন। নাটকটি ৭০ পর্ব। এর আগেও এই ধারাবাহিকের প্রথম কিস্তিতে মূল চরিত্রে সাবলীল অভিনয় করেছিলেন। এ ছাড়া তার হাতে নতুন কোনো নাটক নেই। নাটকটি নিয়ে সাবা বলেন, 'মধ্যবর্তিনী-২'তে কাজ করার কারণ হলো আগের সিজনটিতেও মূল চরিত্রে আমি ছিলাম। এ ছাড়া তাদের অ্যারেঞ্জমেন্ট অনেক উন্নত। তাই এতে কাজ করেছি। খুব শিগগিরই এর প্রচার শুরু হবে।'

বর্তমান টিভি নাটক নিয়ে অভিযোগের শেষ নেই। দুর্বল গল্প, প্রাণহীন অভিনয়, ঘুরে ফিরে একই মুখ, নির্মাণে ত্রম্নটি, স্বল্প বাজেট, প্রচারের ক্ষেত্রে সিন্ডিকেটসহ সব কিছু মিলিয়ে নাটকের পরিবেশ অনুকূলে নয়। এ অভিনেত্রী বলেন, শুধু নাটকের বেলায় নয়। টোটাল টিভি অনুষ্ঠানের অবস্থা ভালো নয়। সব চ্যানেলে প্রায় একই রকম অনুষ্ঠান প্রচার হচ্ছে। অনুষ্ঠানের কোনো নতুনত্ব নেই। কেউ অনুষ্ঠানের কোয়ালিটি রক্ষা করছে না। দুয়েকটি ভালো অনুষ্ঠান যেগুলো প্রচার হচ্ছে সেগুলো গতানুগতিক অনুষ্ঠানের ভিড়ে খুঁজে পাওয়া যায় না।'

টিভি নাটকে নিয়মিত না হলেও সাবা একটি টেলিভিশন চ্যানেলের ব্যতিক্রমী এক অনুষ্ঠানের বিচারক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। প্রথমবারের মতো বাইকারদের নিয়ে 'স্ট্যান্ড ম্যানিয়া' নামে এই রিয়ালিটি শো এনটিভিতে আসছে ৮ নভেম্বরের গ্র্যান্ড ফিনালে অনুষ্ঠিত হবে। অনুষ্ঠানটি নিয়ে সাবা বলেন, 'বাইক স্ট্যান্ডভিত্তিক প্রথম রিয়ালিটি শো 'পালসার স্ট্যান্ড ম্যানিয়া'য় বিচারকের দায়িত্ব পালন করছি। প্রথমবারের মতো বাইকারদের নিয়ে এই রিয়ালিটি শো'র আয়োজন করা হয়েছে। আমাদের গতানুগতিক বিভিন্ন রিয়ালিটির শো'র বাইরে এটি। এর আগে আমি বিউটি কন্টেস্টের বিচারক হয়েছি। অভিনয়ের বাইরে মাঝে মধ্যে এমন আয়োজনের সঙ্গে থাকতে ভালো লাগে। বেশ অভিজ্ঞতা অর্জিত হয় এসব আয়োজন থেকে।'

টেলিভিশন নাটকে নিয়মিত না হলেও চলচ্চিত্রে নিয়মিত হওয়ার চেষ্টা করছেন সাবা। 'মধুর ক্যান্টিন' শিরোনামের একটি চলচ্চিত্র হাতে আছে সাবার। এ ছাড়া দেশীয় কোনো ছবির প্রস্তাব না পেলেও কলকাতার নতুন একটি ছবিতে চুক্তি বদ্ধ হয়েছেন তিনি। জানা গেছে, আগামী ডিসেম্বরে এ ছবির শুটিং শুরু হবে। শুটিং শুরু করার আগে ছবিটি নিয়ে কিছুই বলতে চান না সাবা। বিষয়টি নিয়ে তিনি বলেন, 'এ বিষয়ে আসলে কিছু বলতে চাচ্ছি না। যদি তেমন কিছু হয় তা হলে অবশ্যই সবাই জানতে পারবেন।'

কিন্তু এ বিষয়ে নিউজও হয়েছে? জানতে চাইলে তিনি বলেন, 'এ জন্যই কিছু বলা যাচ্ছে না। স্পষ্ট করে কিছু বলার আগেই তা নিয়ে খবর প্রকাশ হয়। পিস্নজ এ নিয়ে কিছু না বলাই ভালো।'

নতুন এ ছবি ছাড়াও কলকাতায় সাবার 'এপার ওপার' শিরোনামের একটি চলচ্চিত্র মুক্তির অপেক্ষায়। কবে ছবিটি মুক্তি পাচ্ছে জানতে চাইলে বলেন, 'আমি মাঝে বেশ কিছু সময় নির্মাতার সঙ্গে কোনো যোগাযোগ করতে পারিনি। তাই নিশ্চিত বলতে পারছি না এটি কবে মুক্তি পাবে।'
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে