logo
শনিবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৯, ৩ কার্তিক ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০  

সোনামণির গোসল

সোনামণির গোসল
য় রঙ বেরঙ ডেস্ক

স্নানের পাত্রে পস্নাস্টিকের তৈরি হাঁসের ছানা সাঁতার কাটছে? হেলে-দুলে যেন আপনার ছোট্ট সোনামণিটিরই অপেক্ষায়। আদরের সোনামণিও হাঁটি হাঁটি পা পা করে এগিয়ে যাবে স্নানের জায়গায়। হাঁসদের সঙ্গে সেও হয়তো মেতে উঠবে গোসলে। কেমন হবে তবে ভাবুন তো? গোসল নিয়ে ঝক্কিটা অনেকটাই কমে গেল তাই না?

আসলেই তাই। শিশুর গোসলের সময় কয়েকটা জিনিস খেয়াল রাখলে শিশুর আনন্দময় সময় অনেক বেড়ে যায় এবং সে কান্নাকাটিও করে কম। গোসলের সময় খেলনা ব্যবহারে কোনো সমস্যা নেই। তবে খেলনা যাতে সুচালো না হয়, সেদিকে লক্ষ্য রাখুন। মুখে ঢুকে যেতে পারে এমন ছোট বা গোল ধরনের খেলনা না দেয়াই ভালো। সে ক্ষেত্রে খেলনা গলায় আটকে ঘটে যেতে পারে দুর্ঘটনা। এছাড়া সাবান ও শ্যাম্পু ব্যবহারেও সতর্ক হতে হবে। সাবান কেনার সময় খেয়াল রাখতে হবে সেটি যেন শিশুর ত্বকের উপযোগী হয়। ক্ষারের পরিমাণ কম থাকলে সেটি ত্বকের জন্য সহনশীল হবে। বেছে নিতে পারেন তরল সাবানও। বাজারে বেবি সাবান ছাড়াও বেশ কিছু ব্র্যান্ডের মাথা থেকে পা পর্যন্ত ধোয়া বা শুধু আলাদা সাবান কিনতে পাওয়া যায়। ৪০ থেকে ৩০০ টাকায় পাবেন সাবান। শিশুর মাথার ত্বক পরিষ্কারের জন্য শ্যাম্পু সহজ সমাধান। তবে খেয়াল রাখতে হবে শ্যাম্পুর ফেনা বা ধুয়ে ফেলা পানি গড়িয়ে এসে শিশুর চোখে জ্বালা যেন না করে। তাই চটজলদি শ্যাম্পু ধুয়ে ফেলুন। যদি এমন অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটেই যায়, যত দ্রম্নত সম্ভব পানি দিয়ে চোখ ধুয়ে দিতে হবে। ১২০ থেকে ৬০০ টাকায় শ্যাম্পু কিনতে পারবেন অনায়াসেই। তবে হঁ্যা। শিশুর গোসলে বাথ স্পঞ্জের ক্ষেত্রেও রাখতে হবে বাড়তি সতর্কতা। কেননা শিশুর আলতো ত্বক পরিষ্কারের জন্য চাই আদুরে পরশ, আলতো ছোঁয়া। বাথ স্পঞ্জে শিশুর দেহের বাড়তি ময়লা তুলে ফেলা যাবে সহজেই। কিছুটা বড় শিশুর জন্য লুফা ব্যবহার করতে পারেন। এসব পণ্য পেতে চাইলে দাম গুনতে হবে ৮০ থেকে ২০০ টাকার মতো।

শিশুর কানে যাতে পানি না যায় সেজন্য ব্যবহার করতে পারেন শাওয়ার ক্যাপ। কারণ শিশুমাত্রই পানি পেলে হাত-পা নাড়িয়ে খেলতে থাকে। পাছে ভয় হয়, কানে পানি না চলে যায়। আবার কিছু শিশুর ঠান্ডাজনিত কারণে মাথা না ভেজাতে চাইলে পুরো মাথা ঢেকে রাখা টুপি পাওয়া যায়। আবার যেসব শিশু শ্যাম্পু করার সময় চোখ জ্বালা করে কান্নাকাটি করে তাদের জন্য রয়েছে মাথার ওপর অংশ গোল করে কাটা আর সেই সঙ্গে দ্রম্নত পানি ঝরে যাওয়ার জন্য ঢেউখেলানো শাওয়ার ক্যাপ। আবার কোনোটিতে কান ঢেকে রাখার সুবিধাও থাকে। দাম গুনতে হবে ৮০ থেকে ৩০০ টাকার মতো।

শিশুদের নিরাপদ গোসলের জন্য বেছে নেয়া যেতে পারে বাথটাব। এতে শিশু পানিতে হাত-পা ছড়িয়ে খেলতে পারবে। সেই সঙ্গে সেখানে বসেই ঝুপ করে সেরে ফেলা যাবে গোসল। ছোট, বড় ও মাঝারি তিন ধরনের বাথটাব আছে বাজারে। মানভেদে রং ও দামেও আছে ভিন্নতা। গোল, আয়তকার ছাড়াও হাঁসের আদলে তৈরি হওয়া এসব বাথটাব শিশুকে নিয়ে যাবে কল্পনার রাজ্যে। সাধারণ টাব ৫০০ থেকে ১ হাজার ৫০০ টাকা, গুটিয়ে রাখা টাব ১ হাজার ৫০০ থেকে ৩ হাজার, বাতাসে ফোলানো টাব কিনতে গেলে ৬০০ থেকে ৪ হাজার ৫০০ টাকা খরচ পড়বে। বাথটাবের মতো বড় গামলাও হতে পারে শিশুর উপযোগী জলখেলার জায়গা। সেই সঙ্গে স্নান তো রইলই। বড় মাপের গামলার দাম মানভেদে ২৮০ থেকে ৪০০ টাকার মধ্যে।

গোসল তো শেষ হলো। এবার গা মোছানোর পালা। শিশুর শরীর খুবই নাজুক থাকায় শক্ত বা খসখসে তোয়ালে না কিনে একটু দেখে-শুনে নরম ও সুতির তোয়ালে বেছে নিন। তাতেই শিশুর গোসল হবে স্বস্তির। নানা আকার ও মানের তোয়ালে আছে বাজারজুড়ে। তবে শিশুর পছন্দের কার্টুন চরিত্র, গাড়ি, সাগরতলের প্রাণিজগতের ছবি ছাপা তোয়ালে ব্যবহারে শিশুর গোসল হবে আনন্দঘন। ২০০ থেকে ১ হাজার ৩০০ টাকা বাজারদরে কেনা যাবে তোয়ালে।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে